ঢাকারবিবার , ২৫ জুলাই ২০২১
  • অন্যান্য

উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রসুনের উপকারিতা

admin
জুলাই ২৫, ২০২১ ৩:২১ পূর্বাহ্ন । ৬২ জন
Link Copied!
agrilive24.com অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন আমাদের ফেসবুক পেজটি




ফাইল ছবি


রসুন রান্নার মশলা ও ভেষজ ওষুধ হিসাবে ব্যবহৃত হয়। এটি সপুষ্পক একবীজপত্রী Alliaceae পরিবারের অর্ন্তভুক্ত গুল্ম জাতীয় উদ্ভিদ, যার বৈজ্ঞানিক নাম Allium sativum। শুকনো রসুনের বাহিরের সারির কোয়া লাগানো হয়। ১৫ সে.মি. দূরত্বে সারি করে ১০ সে.মি. দূরে ৩-৪ সে.মি. গভীরে রসুনের কোয়া জমিতে চাষের জন্য লাগানো হয়।

জৈব পদার্থ সমৃদ্ধ ও সহজেই গুঁড়া হয় এমন মাটি রসুন চাষের জন্য উপযোগী।রসুন গাছের পাতা বাদামী রং ধারণ করলে এবং পরিপক্ক গাছ যখন ঢলে পড়ে তখন রসুন তোলার উপযোগী হয়। গাছসহ রসুন তোলা হয় এবং ভালভাবে শুকিয়ে মরা পাতা কেটে সংরক্ষণ করা হয়।

প্রতি হেক্টরে ১০-১২ টন ফলন পাওয়া যায়। রসুন গাছের বিটপের নিম্নাংশ পরিবর্তিত হয়ে বাল্ব জাতীয় সঞ্চয়ী অঙ্গ তৈরি করে যা মশলা হিসাবে রান্নায় ব্যবহৃত হয়। পিয়াঁজের সঙ্গে প্রধান পার্থক্য হলো সাদা রঙ এবং অনেক কোয়ার গুচ্ছ। মসলা হিসেবে রসুনের কদর ব্যাপক। তাছাড়া বিভিন্ন আচার ও মুখরোচক খাবার তৈরিতে রসুন অপরিহার্য হয়ে পড়ে।

আমাদের রসনাতৃপ্তির পাশাপাশি চিকিত্‍সাশাস্ত্রে রসুনের ব্যবহার বহু দিনের। প্রাচীনকাল থেকেই বিভিন্ন রোগের চিকিৎসায় রসুনের ব্যবহার চলে এসেছে । রসুনের প্রধান সক্রিয় উপাদান অ্যালিসিন নামক সালফারযুক্ত জৈব যৌগ। অ্যালিসিন রসুনের গন্ধ ও ভেষজ গুণ দুইয়েরই প্রধান কারণ।অ্যালিইন এক ধরনের অ্যামিনো অ্যাসিড যা প্রোটিন তৈরীতে অংশগ্রহন করে না। রসুনকে কাটলে বা ক্ষত করলে অ্যালিনেজ নামে একটি উৎসেচক অ্যালিইন থেকে অ্যালিসিন তৈরি করে। অ্যালিসিন খুবই স্বল্পস্থায়ী। রান্না করলে বা অ্যাসিডের প্রভাবে অ্যালিনেজও নিষ্ক্রিয় হয়ে যায়। অণুচক্রিকার উপরে কাজ করে এটি রক্ততঞ্চনে বাধা দেওয়ার ক্ষমতা রাখে, যা হৃদোরোগে উপকারী।

উচ্চ রক্তচাপ বা হাইপারটেনশন হৃদ রোগের মুখ্য কারণ | কিন্তু দেখা গেছে প্রতিদিন কয়েক কোয়া করে রসুন খেলে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে থাকে | শরীরে কোলেস্টেরল লেভেল ঠিক রাখে । তাই ভেষজ গুণের জন্য কাঁচা রসুন বেশি উপকারী। রসুনে ক্যালসিয়াম‚ কপার‚ পটাশিয়াম‚ আয়োডিন, ফসফরাস‚ আয়রন এবং ভিটামিনবি১,ম্যাঙ্গানিজ, আমিষ ও সামান্য ভিটামিন ‘সি’ থাকে। এটি শরীরে বিভিন্ন ধরনের রোগ প্রশমনের পাশাপাশি বিভিন্ন রোগের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে।

লেখকঃ সুশান্ত কুমার রায়
সোনালী প্রান্তর, লালমনিরহাট







Credit: Source link