ঢাকাসোমবার , ১৯ জুলাই ২০২১
  • অন্যান্য

খোলামেলা স্থানে ব্রুডিং করানো হলে যে সমস্যাগুলো হতে পারে

admin
জুলাই ১৯, ২০২১ ৪:৩১ পূর্বাহ্ন । ৪৬ জন
Link Copied!
agrilive24.com অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন আমাদের ফেসবুক পেজটি


খোলামেলা ঘরে ব্রুডিং করলে যেসব সমস্যা দেখা দিতে পারে তা আমাদের দেশের অনেক খামারিরাই জানেন না। দেশে ডিম ও মাংসের চাহিদা পূরণে ব্যাপকহারে মুরগি পালন করা হয়ে থাকে। মুরগি পালন করার ক্ষেত্রে ব্রুডিং ব্যবস্থা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তবে খোলামেলা ঘরে ব্রুডিং করা হলে কিছু সমস্যা দেখা দেয়। আজ আমরা জানবো খোলামেলা ঘরে ব্রুডিং করলে যেসব সমস্যা দেখা দিতে পারে সেই সম্পর্কে-

খোলামেলা ঘরে ব্রুডিং করলে যেসব সমস্যা দেখা দিতে পারেঃ


১। খোলামেলা ঘরের তাপমাত্রা কমে গেলে তাপের জন্য বাচ্চারা গাদাগাদি করে বেশিরভাগ সময় বসে থাকার কারণে প্রতিদিনের দরকারী পরিমান খাদ্য এবং পানি খায় না। এর ফলে বাচ্চাগুলো শারীরিকভাবে দুর্বল হয়ে এমনকি মারাও যেতে পারে।

২। খোলামেলা ঘরে ব্রুডিং করানো হলে পরিবেশের তাপমাত্রা কম থাকার কারনে ঘরের তাপ বাইরে চলে যাওয়া যাবে। ফলে ব্রুডার ঘরে তাপমাত্রা কমে যাবে যা ব্রুডিং এ বিভিন্ন জটিলতার সৃষ্টি করবে।

৩। খোলামেলা ঘরে বাচ্চা অপুষ্টিতে ভোগার কারণে অধিক মৃত্যু হার এবং বাচ্চার লেংড়া খোঁড়া হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যায়।

৪। পর্যাপ্ত পরিমাণ খাদ্য না খাওয়ার কারণে সপ্তাহ অনুসারে টার্গেট ওজন না আসাতে দেরিতে উৎপাদন আসার ঝুঁকি।

৫। ঠান্ডার কারনে বাচ্চা কম নড়াচড়া এবং হাঁটাহাঁটি না করার কারনে পায়ে জড়তা চলে আসা।

৬। প্রোডাকশন শুরুর আগে আগে সঠিক বডি ওয়েট না আসার কারণে লাইটিং সিডিউল চালু করলে ডিম আসা শুরু করলেঅনেক মুরগির মৃত্যু হতে পারে এবং ডিমের সাইজ ছোট হতে পারে।

৭। সিজনাল কারনে রাণীক্ষেত ও বার্ড ফ্লু রোগের ঝুঁকি থাকা। এছাড়াও কক্সিডিওসিসের ঝুঁকি বেড়ে যেতে পারে।


আরও পড়ুনঃ মুরগির খামারে বাচ্চা পরিবহণ ও ব্রুডার প্রস্তুতি


পোল্ট্রি প্রতিবেদন / আধুনিক কৃষি খামার

Credit: Source link