ঢাকাশনিবার , ২১ অগাস্ট ২০২১
  • অন্যান্য

গাইবান্ধায় মরিচের বাম্পার ফলন, দামে খুশি চাষিরা

admin
অগাস্ট ২১, ২০২১ ২:৩৫ অপরাহ্ন । ৮৭ জন
Link Copied!
agrilive24.com অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন আমাদের ফেসবুক পেজটি





গাইবান্ধায় মরিচের বাম্পার ফলন হয়েছে। চলতি মৌসুমে আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় ও জমি চাষের অনুকূলে থাকায় মরিচ চাষ করে বেশ ভালো ফলন পেয়েছেন গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জের কৃষকরা। ভালো ফলন হওয়ার পাশাপাশি বাজারে দাম ভালো থাকায় হাঁসি ফুটেছে কৃষকদের মুখে।

স্থানীয় কৃষকরা জানান, সাধারণত এ সময়ে টানা বর্ষণ আর বন্যায় নষ্ট হয় মরিচ ক্ষেত। কিন্তু এবছর কিছুটা ব্যতিক্রম ঘটেছে। অন্যান্যা বছরের তুলনায় আবহাওয়া রয়েছে অনুকুলে।যার কারণে মরিচের বাম্পার ফলন হয়েছে।বিঘাপ্রতি গড়ে প্রায় ২৫ মণ কাঁচা মরিচ ঘরে তুলবেন কৃষকরা।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, মরিচ ক্ষেতের সবুজের সমাহার। এসময় কামারদহ ইউনিয়নের বার্না আকুব গ্রামের কৃষক এনামুল হক ও তার স্ত্রী তহমিনা তাদের ক্ষেত থেকে মরিচ তুলে মন খুলে হাসছিলেন। আর আগে টানা লকডাউন চলাকালে এসব মরচি প্রতিমণ এক হাজার টাকা দামে বিক্রি করছিলেন তারা। এরপর লকডাউন শীথিল হওয়ার ১০ দিন পর একই মরিচ বিক্রি করা হচ্ছিল ৬ হাজার টাকা দরে। এমনিভাবে অধিক দাম পাওয়ায় কৃষকের মনে দেখা দেয় আনন্দের বন্যা।

চাষি এনামুল হক বলেন, বর্গা নিয়ে ১৪ শতক জমিতে বাগুরা জাতের মরিচ আবাদ করেছেন। ফলনও হয়েছে অনেক ভালো। সার-কীটনাশকসহ অন্যান্য খরব বাদে দ্বিগুণ লাভ থাকবে তার। বর্তমানে বাজারে আড়াই হাজার টাকা মণ দরে বিক্রি করা হচ্ছে। তবে ভারতের মরিচ না ঢুকলে আরও বেশী দাম পাওয়া যেতো।

গাইবান্ধা জেলা কৃষি বিভাগের উপ-পরিচালক মাসুদুর রহমান বলেন, এবারের মৌসুমে জেলায় ৬৬০ হেক্টর জমিতে কাঁচা মরিচ রয়েছে। এ বছর অধিক ফলন ও দাম থাকায় কৃষকরা লাভবান হচ্ছেন।


আরও পড়ুনঃ ঠাকুরগাঁওয়ে চাষ হচ্ছে মরুভূমির ত্বীন ফল


কৃষি প্রতিবেদন / আধুনিক কৃষি খামার







Credit: Source link