Home অন্যান্য লাইভ নিরাপদ সবজি আবাদে সেক্স ফেরোমন ফাঁদের ব্যবহার

নিরাপদ সবজি আবাদে সেক্স ফেরোমন ফাঁদের ব্যবহার

0
নিরাপদ সবজি আবাদে সেক্স ফেরোমন ফাঁদের ব্যবহার

বর্তমান বিশ্বের অন্যতম পরিবেশ বান্ধব পোকা দমন পদ্ধতি হচ্ছে সেক্স ফেরোমন ফাঁদ ব্যবহারের মাধ্যমে পোকা দমন । এ পদ্ধতিতে প্লাষ্টিকের বক্স ব্যবহার করা হয় যার দু পাশে ত্রিকোনাকৃতি ফাঁক থাকে। ফাঁদে ব্যবহৃত টোপটিতে স্ত্রী পোকার নিসৃত গন্ধ কে কৃত্রিমভাবে ১০০গুন বৃদ্ধি করে দেয়া থাকে যাতে প্রাপ্তবয়স্ক পুরুষ পোকা বক্সের ভিতরে বা আশে পাশে স্ত্রী পোকা আছে ভেবে খুজতে থাকে। একসময় উড়তে উড়তে বক্সের সাবান পানির মধ্যে হয়রান হয়ে পড়ে পোকাটি মারা

যায়। এভাবে প্রাপ্ত বয়স্ক পুরুষ পোকা মারার মাধ্যমে কীড়া পোকার বংশবৃদ্ধি বন্ধ করার মাধ্যমে পোকা দমন করা হয়। বিশেষ করে ফল ও কান্ড ছিদ্রকারী পোকার লার্ভা/কীড়া দমনের জন্য এ জৈবিক পদ্ধতি খুবই কার্যকরী।

সেক্স ফেরোমন ফাঁদ তৈরির উপকরণঃ
ফেরোমন লিউর, প্লাষ্টিক বৈয়াম, তার, সাবান গুড়া, পানি ও বাঁশের খুটি।

ফাঁদ তৈরি ও স্থাপন পদ্ধতিঃ
১. প্লাষ্টিক বৈয়ামের ত্রিকোনাকার ভাবে কাটা অংশের মাঝ বরাবর তার দিয়ে ফেরোমন লিউর / টোপটি ঝুলিয়ে দিতে হবে।
২. গাছের সম উচ্চতায় ফেরোমন ফাঁদটি দুটি খুটির সাহায্যে শক্তভাবে বেধেঁ দিতে হবে। তবে যেহেতু ক্ষতিকর পোকা ফল ও ডগা ছিদ্র করে সেজন্য ফুল ও ডগার কাছাকাছি বক্সটিকে রাখতে হবে।

৩. বক্সটির/বৈয়ামের ভিতরে কর্তিত অংশ( ২-৩ সে.মি.) পর্যন্ত গুড়া সাবান মিশ্রিত পানি দিতে হবে।
৪. কর্তিত অংশ উত্তর – দক্ষিন মুখ করে ঝুলাতে হবে।
৫। ফেরোমন লিউর / টোপটি যাতে সাবানের পানিতে না ভিজে যায় সেজন্য পানির কিছুটা উপরে রাখতে হবে।
৬। বৃষ্টির পানিতে যাতে ফেরোমন লিউর / টোপটি না ভিজে যায় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।
৭। বিভিন্ন কোম্পানী দুইপাশে ত্রিকোনাকার বক্স তৈরী করে বাজারজাত করছে। তাছাড়া ২লিটার পানির বোতলের দুপাশে আগুনে গরম ছুরি দিয়ে খুব সহজেই ফাঁদ বক্স তৈরী করা যায়।

১.বিএসএফবিঃ বেগুনের মাজরা পোকা দমনে ব্যবহার করা হয়।
মাঠে স্থাপনের সময়ঃ চারা লাগানোর ১ সপ্তাহের মধ্যে জমিতে স্থাপন করতে হবে। প্রতি ২.৫ শতকে ১টি ফাঁদ ব্যবহার করতে হবে।প্রতি বিঘাতে ১৫ টি ফাঁদ ব্যবহার করতে হবে।

২।স্পোডো লিউরঃ
ফুলকপি, বাঁধাকপি, তরমুজ কচুর লেদা পোকা ও টমেটোর ফল ছিদ্রকারী পোকা দমনে ব্যবহার করা হয়।
মাঠে স্থাপনের সময়ঃ চারা লাগানোর ১ সপ্তাহের মধ্যে ব্যবহার করতে হবে, কচুর ক্ষেত্রে বীজ লাগানোর ৩০-৩৫ দিনের মধ্যে লাগাতে হবে।প্রতি ৬ শতক জমিতে ১ টি ফাঁদ ব্যবহার করতে হবে। এ ফাঁদের দাম অন্যগুলোর দ্বিগুন। ফুলকপি ও বাঁধাকপির ফাঁদের পরিমান একই।
৩। কিউ- ফেরোঃ কুমড়া জাতীয় ফসল (লাউ,মিষ্টিকুমড়া, শশা, ক্ষিরা,ঝিঙ্গা, করলা, কাকরোল,তরমুজ, বাঙ্গি ইত্যাদি)এর মাছি পোকা দমনে ব্যবহার করা হয়।

মাঠে স্থাপনের সময়ঃ চারা লাগানোর প্রথম সপ্তাহের মধ্যে জমিতে ফাঁদ লাগাতে হবে।প্রতি ২.৫ শতক জমির জন্য ১টি ফাঁদ ব্যবহার করতে হবে। প্রতি বিঘায় ১০-১২ টি ব্যবহার করতে হবে।

ফার্মসএন্ডফার্মার/ ১৯ আগস্ট ২০২১

Credit: Source link

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here